ব্রেকিং নিউজ :
প্রবাসীদের বৈধ পথে রেমিট্যান্স পাঠানোর আহ্বান রাষ্ট্রদূত ইমরানের কাতারের আমিরের সফরে বাংলাদেশ-কাতার সম্পর্ক নতুন উচ্চতায় পৌঁছাবে : শিল্পমন্ত্রী হজযাত্রীদের টিকার সময় লাগবে স্বাস্থ্য পরীক্ষার রিপোর্ট উপজেলা কেন্দ্রীয় সমবায় সমিতির অব্যবস্থাপনা দূর করতে উদ্যোগ নেয়া হবে : সমবায় মন্ত্রী কাল দু’দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে ঢাকা আসছেন কাতারের আমির বিএনপি রাজনৈতিকভাবে টালমাটাল অবস্থায় রয়েছে : ওবায়দুল কাদের তাপদাহের কারনে চুয়াডাঙ্গায় জেলা দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভা তাপদাহের কারণে হাসপাতালগুলোকে প্রস্তুত রাখার নির্দেশ স্বাস্থ্যমন্ত্রীর ছবি সম্বলিত জায়নামাজ আমদানি বন্ধে আবেদন নিষ্পত্তির নির্দেশ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব ব্যাটারি কমপ্লেক্সের উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী
  • প্রকাশিত : ২০২২-১১-১২
  • ২৪৫ বার পঠিত
  • নিজস্ব প্রতিবেদক

স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেছেন, নারী উদ্যোক্তাদের এগিয়ে নিতে ব্র্যান্ডিং বাংলাদেশ গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে।
তিনি বলেন, নারীদের দক্ষতা, মেধা ও মননের সমন্বয়ে অপূর্ব শিল্পকর্মের সৃষ্টি। প্রত্যন্ত অঞ্চলের পিছিয়ে পড়া নারী ও প্রতিবন্ধীদের উৎপাদিত পণ্য কেন্দ্রবিন্দুতে নিয়ে এসে তাদের এগিয়ে নিয়ে যাওয়া জরুরি। এক্ষেত্রে ব্র্যান্ডিং বাংলাদেশ আয়োজনটি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে।
হেরিটেজ পল্লী ও প্রেরণা ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে আজ রাজধানীর আলোকি কনভেনশন সেন্টারে আয়োজিত ‘ব্র্যান্ডিং বাংলাদেশ’-এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত হয়ে স্পিকার আজ এসব কথা বলেন। এসময় স্পিকার অনুষ্ঠানের শুভ উদ্বোধন করেন। বাংলাদেশে নিযুক্ত তুরস্কের রাষ্ট্রদূত মুস্তাফা ওসমান তুরান ও জার্মানীর রাষ্ট্রদূত অখিম ট্রস্টার অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন।
স্পিকার বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উদ্যোগে জয়িতা ফাউন্ডেশন নারীদের উৎপাদিত পণ্য ঢাকাসহ সারা  দেশে বিক্রয়ের ব্যবস্থা করছে। তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগ কর্তৃক ১ হাজার নারী উদ্যোক্তাকে প্রণোদনা প্রদান করা হয়েছে এবং আরো ৭ শ’ নারী উদ্যোক্তাকে প্রণোদনা প্রদান করা হবে। নারীদের জীবন-জীবিকা নির্বাহের সঙ্গে ব্র্যান্ডিং বিষয়টি জড়িত। নারীরা যেন উৎপাদিত পণ্যের ন্যায্যমূল্য পান তা নিশ্চিত করতে হবে। অনলাইন ও ই-কমার্সের সুবিধা ক্ষুদ্র ও মাঝারি নারী উদ্যোক্তাদের মাঝে ছড়িয়ে দিতে হবে। জামানতবিহীন ঋণ সুবিধা নারীদের জন্য বিস্তৃত করা জরুরি। কোভিডের কারণে ক্ষতিগ্রস্ত নারীদের এধরনের সুবিধা ও প্রণোদনা প্রদান প্রয়োজন। তাহলেই কোভিডের ক্ষতি মোকাবেলা করে সামনের দিকে এগিয়ে যাওয়া সম্ভব।
ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী বলেন, সারা বাংলাদেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলে নারীরা বিভিন্ন পণ্য তৈরি করছে। সরকারের পাশাপাশি বেসরকারিভাবেও তাদের অর্থনৈতিক সহযোগিতা প্রয়োজন। তাদের উৎসাহিত করতে সকল রকম সুবিধা বিস্তৃত করা দরকার। তাদের উৎপাদিত পণ্যের উন্মুক্ত বাজারে প্রবেশাধিকার নিশ্চিত করতে হবে। হেরিটেজ পল্লী ও প্রেরণা ফাউন্ডেশন এক্ষেত্রে ভূমিকা রাখছে।
হেরিটেজ পল্লীর সভাপতি টুটলি রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রেরণা ফাউন্ডেশনের পরিচালক মুবিনা আসাফ বক্তব্য রাখেন। অনুষ্ঠানে বিভিন্ন গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, নারী উদ্যোক্তা ও গণমাধ্যমকর্মীগণ উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...
#
ক্যালেন্ডার...

Sun
Mon
Tue
Wed
Thu
Fri
Sat