ব্রেকিং নিউজ :
সবাইকে আদালতের আদেশ মানতে হবে, পুলিশ আইন লঙ্ঘন বরদাশত করবে না : ডিএমপি কমিশনার বগুড়ায় প্রাইভেটকার-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ২ বান্দরবানে কেএনএফ সদস্য সন্দেহে আটক ৫ জন কারাগারে মুন্সীগঞ্জে বাইক দুর্ঘটনায় মোটর মেকানিক নিহত শরীয়তপুরে আমনের আবাদ বাড়াতে কাজ করছে কৃষি বিভাগ দেশের মানুষের যৌক্তিক দাবির প্রতি আওয়ামী লীগ সর্বদা আন্তরিক : ওবায়দুল কাদের যুবলীগ এখন সুসংগঠিত মানবিক যুব সংগঠন : যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক নজরুলের বিদ্রোহী চেতনা ধারণ করেই বঙ্গবন্ধু স্বাধীনতা এনেছিলেন : মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী সার্কভুক্ত দেশে স্থানীয় মুদ্রায় বাণিজ্য করলে অর্থনীতি শক্তিশালী হবে : বাংলাদেশ ব্যাংক গভর্নর আন্দোলনকারীরা বক্তব্য দিতে চাইলে আপিল বিভাগ বিবেচনায় নেবেন : আইনমন্ত্রী
  • প্রকাশিত : ২০২৪-০৬-২৬
  • ২৩৪৩৪৮৬ বার পঠিত
  • নিজস্ব প্রতিবেদক
সংগীতশিল্পী, সুরকার ও গীতিকার হায়দার হোসেন অনেক বছর ধরেই হৃদযন্ত্রের জটিলতায় ভুগছেন। সম্প্রতি তিনি বেশি অসুস্থ হলে ঢাকার ন্যাশনাল হার্ট ফাউন্ডেশন অব বাংলাদেশে ভর্তি হয়েছিলেন। তিন দিন চিকিৎসা নিয়ে আজ (২৬ জুন) বুধবার সকাল ১০টায় হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র নিয়ে বাসায় ফিরেছেন জনপ্রিয় এ গায়ক।সংবাদমাধ্যম অনুযায়ী, হায়দার হোসেন জানান, তার হৃদযন্ত্রে একটি রিং (করোনারি স্টেন্ট) পরানো হয়েছে। 
হৃদরোগ ছাড়াও ডায়াবেটিসে ভুগছেন তিনি। এর আগে আরও চারটি রিং পরানো হয়েছে ৬০ বছর বয়সী এই সংগীতশিল্পীকে।তিনি বলেন, ‘আমি এখন মেয়ের বাসায় আছি। আমি সুস্থ আছি। সবার কাছে দোয়া চাই।
জীবনমুখী গান গেয়ে শ্রোতামহলে বেশ জনপ্রিয়তা পান সংগীতশিল্পী হায়দার হোসেন। তার গানে আলোচনা-সমালোচনা দুটোই থাকে। তার গাওয়া উল্লেখযোগ্য গানগুলোর তালিকায় আছে- ‘আমি ফাইসা গেছি’, ‘তিরিশ বছর পরেও আমি স্বাধীনতাটাকে খুঁজছি’ ইত্যাদি।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...
#
ক্যালেন্ডার...

Sun
Mon
Tue
Wed
Thu
Fri
Sat