ব্রেকিং নিউজ :
সবাইকে আদালতের আদেশ মানতে হবে, পুলিশ আইন লঙ্ঘন বরদাশত করবে না : ডিএমপি কমিশনার বগুড়ায় প্রাইভেটকার-ট্রাকের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ২ বান্দরবানে কেএনএফ সদস্য সন্দেহে আটক ৫ জন কারাগারে মুন্সীগঞ্জে বাইক দুর্ঘটনায় মোটর মেকানিক নিহত শরীয়তপুরে আমনের আবাদ বাড়াতে কাজ করছে কৃষি বিভাগ দেশের মানুষের যৌক্তিক দাবির প্রতি আওয়ামী লীগ সর্বদা আন্তরিক : ওবায়দুল কাদের যুবলীগ এখন সুসংগঠিত মানবিক যুব সংগঠন : যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক নজরুলের বিদ্রোহী চেতনা ধারণ করেই বঙ্গবন্ধু স্বাধীনতা এনেছিলেন : মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ মন্ত্রী সার্কভুক্ত দেশে স্থানীয় মুদ্রায় বাণিজ্য করলে অর্থনীতি শক্তিশালী হবে : বাংলাদেশ ব্যাংক গভর্নর আন্দোলনকারীরা বক্তব্য দিতে চাইলে আপিল বিভাগ বিবেচনায় নেবেন : আইনমন্ত্রী
  • প্রকাশিত : ২০২৩-১১-১৯
  • ৪৫৮৮৮ বার পঠিত
  • নিজস্ব প্রতিবেদক
চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. রেজাউল করিম চৌধুরী বলেছেন, দেশকে ধ্বংস করাই বিএনপির হরতাল-নৈরাজ্যের লক্ষ্য। 
তিনি বলেন, অগ্নি-সন্ত্রাসীদের সামাজিকভাবে বয়কট করতে হবে। আমাদের সকলকে ঐক্যবদ্ধ থেকে তাদের এই ঘৃন্য ষড়যন্ত্র মোকাবেলা করতে হবে।  
বিএনপি-জামায়াত চক্রের আন্দোলনের নামে অরাজকতা সৃষ্টির বিরুদ্ধে জনগণের জানমাল রক্ষায় বহদ্দারহাট ও সিএন্ডবির মোড়ে চত্বরে রবিবার সকালে শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশসহ বিক্ষোভ মিছিলে মেয়র রেজাউল এ মন্তব্য করেন।
তিনি বলেন, আসন্ন জাতীয় সংসদ নির্বাচনে জননেত্রী শেখ হাসিনার বিজয় নিশ্চিত করে তার অসমাপ্ত কাজ সম্পন্ন করার সুযোগ দিতে হবেত হবে। বিএনপি-জামায়ত দেশের উন্নয়নকে সহ্য করতে পারছে না। তারা দেশকে ধ্বংস করার জন্য আগুন সন্ত্রাস ও নৈরাজ্যের আশ্রয় নিয়েছে। 
শান্তি সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগ নেতা হেলাল আকবর চৌধুরী বাবর, অধ্যাপক মাসুম চৌধুরী, সামসুল আলম, চসিক কাউন্সিলর আশরাফুল আলম, নুরুল আমীন মামুন, এসরারুল হক, মো. ইলিয়াছ, আইয়ুব খান, সাইফুদ্দিন খালেদ, মঞ্জুর হোসেনসহ আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ ও ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দ।
চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে সকালে দারুল ফজল মার্কেটস্থ দলীয় কার্যালয় চত্বরে নাশকতা ও অরাজকতাবিরোধী শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশে বক্তাগণ বলেন, নেতৃত্ববিহীন বিএনপি এবং মানবতাবিরোধী কলঙ্কিত অপরাধের জামাতের ধ্বংসাত্মক অপরাজনীতি জনগণ প্রত্যাখান করেছে। তাদের ডাকা অযৌক্তিক হরতাল কর্মসূচি জনগণ ব্যর্থ করে দিয়েছে। অযৌক্তিক অরাজনৈতিক কর্মসূচি দিয়ে বিএনপি জামাত মাঠ থেকে পালিয়েছে। জনগণ শান্তি চায়।
তারা বলেন, বিএনপি-জামাতের পরিকল্পিত অরাজকতা নাশকতা এবং অযৌক্তিক অবরোধ কর্মসূচির বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগের সর্বস্তরের নেতাকর্মীরা শান্তিকামী জনগণের জানমাল রক্ষায় দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচন পর্যন্ত মাঠে থাকবে। এই নির্বাচনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যাকেই নৌকা প্রতীক দেবেন তার বিজয় নিশ্চিত করতে হবে। শেখ হাসিনার শাসনামলে যে যুগান্তকারী উন্নয়ন হয়েছে তা ভোটারদের কাছে তুলে ধরতে হবে। পাশাপাশি বিএনপি জামাতের শাসনামলে কি কি অপকীর্তি ও অধঃপতন হয়েছিল এবং এখনো জানমালের ক্ষতি করছে তার তথ্যবহুল চিত্রও ভোটারদের জানাতে হবে। 
চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শফিক আদনানের সভাপতিত্বে ও তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক চন্দন ধরের সঞ্চালনায় শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশে বক্তব্য রাখেন ৩৪ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের আহ্বায়ক আফছার উদ্দিন চৌধুরী, ৩১ নং আলকরণ ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি রুহুল আমিন তপন, ৩৪ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক ফজলে আজিজ বাবুল, ৩০ নং পূর্ব মাদারবাড়ী ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মুজিবুল হক পেয়ারু, ৩৩ নং ফিরিঙ্গীবাজার ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের আশরাফুল আলম বাবুল প্রমুখ। 
এছাড়াও নগরীর আরো ১৮টি পূর্বনির্ধারিত পয়েন্টে আওয়ামী লীগ ও সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দদের উপস্থিতিতে শান্তি ও উন্নয়ন সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। 
চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক সাবেক সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন এ সকল সমাবেশ থেকে বিএনপি জামাতের অযৌক্তিক হরতাল প্রত্যাখান করে জনজীবন স্বাভাবিক রাখায় নগরবাসীকে ধন্যবাদ জানান এবং শান্তি-শৃঙ্খলা রক্ষায় সক্রিয় থাকার জন্য আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর কর্মকর্তা ও সদস্যদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..
ফেসবুকে আমরা...
#
ক্যালেন্ডার...

Sun
Mon
Tue
Wed
Thu
Fri
Sat